আমরা অনেকেই স্নান সেরে বা দিনের কিছু কিছু সময় চিরুনি দিয়ে চুল আঁচড়ে থাকি। এটা আমরা ছোটো থেকে অভ্যাসবশতই করে থাকি কিন্তু, এরও যে কিছু উপকারিতা আমাদের জীবনে আছে সেসম্পর্কে আমরা ঠিকঠাক অবগত নই। অনেকে চিরুনির বদলে হাত দিয়ে চুল ঠিক করতে বেশি স্বাছন্দ্য বোধ করেন কিন্তু, তাদের উদ্দ্যেশ্যে বলার এই যে, চিরুনি দিয়েই চুল আঁচড়ানো অভ্যাস করুন। এর কিছু উপকারী দিক আছে। সেগুলি হল-

১। চুল পরিষ্কার থাকে –

ধুলো ময়লার হাত থেকে চুলকে বাঁচাতে অনেকেই খুব দামি শ্যাম্পু ব্যবহার করে থাকেন। তবে ভুলে যান যে চুলকে পরিষ্কার রাখতে চিরুনি চুল আঁচড়ানোর থেকে ভাল কিছু হয় না। পরিবেশে উপস্থিত নানা ক্ষতিকর উপাদানের হাত থেকে চুলকে বাঁচাতে চিরুনি দিয়ে চুল আঁচড়ানোর থেকে ভাল উপায় আর কিছু নেই।

২। স্ক্যাল্পে রক্তের প্রবাহ বাড়ে –

চিরুনি দিয়ে চুল আঁচড়ানোর সময় স্কাল্পে রক্ত চলাচল বেড়ে যায়। ফলে অক্সিজে়ন সমৃদ্ধি রক্ত এবং একাধিক পুষ্টকর উপাদান চুলের গোড়ায় পৌঁছে গিয়ে চুলের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটায়। সেই সঙ্গে চুল পড়াও কমে যায়।

৩। স্ক্যাল্পে অ্যাসিডের স্তর কমে যায় –

স্ক্যাল্পে প্রতিনিয়ত ইউরিক অ্যাসিড সহ একাধিক অ্যাসিড জমতে থাকে। এই অ্যাসিডের স্তরকে পরিষ্কার না করলে নানা ধরনের স্কাল্পের রোগ হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। এক্ষেত্রে চুল আঁচড়ানো দারুন কাজে আসতে পারে। চুল আঁচড়ানোর সময় স্কাল্পের উপরে জমে থাকা অ্যাসিডের স্তর সরে যায়। ফলে চুল এবং স্ক্যাল্প, উভয়ের স্বাস্থ্যেরই উন্নতি ঘটে।

৪। উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি পায় চুলের –

চুলের গোড়ায় থাকা একাধিক হরমোনাল এবং তেলের গ্রাল্ডগুলি মারাত্মক অ্যাকটিভ হয়ে যায়। ফলে চুলের উজ্জ্বলতা বেড়ে যাওয়ার পাশাপাশি সৌন্দর্যও বৃদ্ধি পায়।

৫। চুল ফিরে পায় নতুন প্রাণ –

প্রতিদিন চিরুনি দিয়ে চুল আঁচড়ালে চুল আরও শক্তোপক্তো এবং প্রাণচ্ছ্বল হয়ে ওঠে। সুন্দর-স্বাস্থ্যবান চুল পেতে সবার আগে চিরুনি দিয়ে চুল আঁচড়ানোর অভ্যাস করুন।

The post ৫ টি কারনের জন্য রোজ চুল আঁচড়ানো দরকার, ২ নং কারনটি জানলে চমকে উঠবেন appeared first on Moner Diary.


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *